বরিশাল ক্রাইম নিউজ ডট কমজলাবদ্ধতা নিরসনে চাই পরিকল্পিত বাস্তবায়ন - বরিশাল ক্রাইম নিউজ ডট কম
বৃহস্পতিবার, ২১ জুন, ২০১৮, ৭ আষাঢ়, ১৪২৫, ৮ শাওয়াল, ১৪৩৯, সকাল ১০:৫৭

প্রকাশিতঃ অক্টোবর ২২, ২০১৭ ৮:৪৩ অপরাহ্ণ
A- A A+ Print

জলাবদ্ধতা নিরসনে চাই পরিকল্পিত বাস্তবায়ন

॥ ফাহিম ফিরোজ ॥
কয়েক দিনের টানা ভারি বর্ষণে বরিশাল নগরীর বিভিন্ন রাস্তা-ঘাট বসত বাড়ি তলিয়ে গেছে। বিভিন্ন পত্রিকায় জলাবদ্ধতা নিয়ে ফলাও করে সংবাদ ছাপা হয়েছে। বিষয়টি একবিংশ শতাব্দিতে মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে। পাশাপাশি সরকারের ডিজিটাল নগরায়নকে বাধাগ্রস্থ করছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নগরীর ৮০ ভাগ রাস্তা বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে। বসত বাড়িসহ বরিশাল আঞ্চলিক পানি উন্নয়ন বোর্ডটিও রয়েছে তলিয়ে। বরিশাল সিটি কর্পোরেশন (বিসিসি) এবং পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) উপর যাচ্ছে নগরায়নের অভিশাপ। অল্প স্বল্প বৃষ্টি হলেই নগর তলিয়ে যাওয়ার মূল কারণ পরিকল্পিত পানি নিস্কাশনের ব্যবস্থা না করা। পাশাপাশি রাস্তা কিংবা সড়ক তৈরি করা হচ্ছে নিচু। এ সকল সমস্য সমাধানে নিতে হবে দীর্ঘ মেয়াদী প্রকল্প গ্রহণ এবং তার যথাযথ বাস্তবায়ন। পাশাপাশি শহর রক্ষা বাধ প্রকল্প বাস্তবায়ন করা। জলাবদ্ধতা শহর কর্তৃপক্ষ বা বিসিসিকে নিতে হবে উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন বাজেট প্রণয়ন এবং তার বাস্তবায়ন করা। ড্রেন পরিস্কার রাখতে নগরবাসীকে সচেতন হতে হবে। যেখানে-সেখানে ময়লা আর্বজনা ফেলা থেকে বিরত থাকতে হবে। মহা নগরীর গুরুত্বপূর্ন খালগুলো পানি নিস্কাশনের জন্য খনন করা। মৃত খালগুলোকে উদ্ধার করে তা খনন করা। সর্বোপরি নগরবাসীর মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। বিসিসি মেয়র বিভিন্ন গণমাধ্যমে বলেছেন যে নগরীতে জলাবদ্ধতার দায়ভার তিনি নিবেন না। একজন জন প্রতিনিধি হিসেবে তার মুখে এ ধরনের বক্তব্য জনসাধারণকে হতাশ করেছে। তিনি পূর্ববর্তী মেয়রের অপরিকল্পিত কাজের দায়ভার নিবেন না। তবে তার উচিত নগরবাসীর জন্য জলাবদ্ধতা নিরসনে দীর্ঘ মেয়াধী প্রকল্প গ্রহণ করা এবং তা যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করা। পাশাপাশি জনসচেতনতা সৃষ্টির জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করা। তাহলেই আগামীতে একটি পরিকল্পিত ও পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন্ নগরী পাবে জনসাধারণ।

 বরিশাল ক্রাইম নিউজ ডট কম

জলাবদ্ধতা নিরসনে চাই পরিকল্পিত বাস্তবায়ন

রবিবার, অক্টোবর ২২, ২০১৭ ৮:৪৩ অপরাহ্ণ

॥ ফাহিম ফিরোজ ॥
কয়েক দিনের টানা ভারি বর্ষণে বরিশাল নগরীর বিভিন্ন রাস্তা-ঘাট বসত বাড়ি তলিয়ে গেছে। বিভিন্ন পত্রিকায় জলাবদ্ধতা নিয়ে ফলাও করে সংবাদ ছাপা হয়েছে। বিষয়টি একবিংশ শতাব্দিতে মেনে নিতে কষ্ট হচ্ছে। পাশাপাশি সরকারের ডিজিটাল নগরায়নকে বাধাগ্রস্থ করছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নগরীর ৮০ ভাগ রাস্তা বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে গেছে। বসত বাড়িসহ বরিশাল আঞ্চলিক পানি উন্নয়ন বোর্ডটিও রয়েছে তলিয়ে। বরিশাল সিটি কর্পোরেশন (বিসিসি) এবং পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) উপর যাচ্ছে নগরায়নের অভিশাপ। অল্প স্বল্প বৃষ্টি হলেই নগর তলিয়ে যাওয়ার মূল কারণ পরিকল্পিত পানি নিস্কাশনের ব্যবস্থা না করা। পাশাপাশি রাস্তা কিংবা সড়ক তৈরি করা হচ্ছে নিচু। এ সকল সমস্য সমাধানে নিতে হবে দীর্ঘ মেয়াদী প্রকল্প গ্রহণ এবং তার যথাযথ বাস্তবায়ন। পাশাপাশি শহর রক্ষা বাধ প্রকল্প বাস্তবায়ন করা। জলাবদ্ধতা শহর কর্তৃপক্ষ বা বিসিসিকে নিতে হবে উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন বাজেট প্রণয়ন এবং তার বাস্তবায়ন করা। ড্রেন পরিস্কার রাখতে নগরবাসীকে সচেতন হতে হবে। যেখানে-সেখানে ময়লা আর্বজনা ফেলা থেকে বিরত থাকতে হবে। মহা নগরীর গুরুত্বপূর্ন খালগুলো পানি নিস্কাশনের জন্য খনন করা। মৃত খালগুলোকে উদ্ধার করে তা খনন করা। সর্বোপরি নগরবাসীর মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে হবে। বিসিসি মেয়র বিভিন্ন গণমাধ্যমে বলেছেন যে নগরীতে জলাবদ্ধতার দায়ভার তিনি নিবেন না। একজন জন প্রতিনিধি হিসেবে তার মুখে এ ধরনের বক্তব্য জনসাধারণকে হতাশ করেছে। তিনি পূর্ববর্তী মেয়রের অপরিকল্পিত কাজের দায়ভার নিবেন না। তবে তার উচিত নগরবাসীর জন্য জলাবদ্ধতা নিরসনে দীর্ঘ মেয়াধী প্রকল্প গ্রহণ করা এবং তা যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করা। পাশাপাশি জনসচেতনতা সৃষ্টির জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করা। তাহলেই আগামীতে একটি পরিকল্পিত ও পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন্ নগরী পাবে জনসাধারণ।

সম্পাদক ও প্রকাশক : খন্দকার রাকিব ।
ফকির বাড়ি, ৫৫৪৫৪ বরিশাল।
মোবাইল: ০১৭২২৩৩৬০২১
ইমেইল : rakibulbsl@gmail.com, barisalcrimenews@gmail.com